করোনা ভাইরাসের (কোভিড-১৯) প্রাদুর্ভাবের কারণে ঈদুল ফিতরের মতো এবারও জাতীয় ঈদগাহে ঈদের নামাজ হচ্ছে না। স্বাস্থ্যবিধি মেনে এবার জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে ৬টি জামাত অনুষ্ঠিত হবে।

ইসলামিক ফাউন্ডেশনের তথ্য অনুযায়ী বায়তুল মোকাররমে ঈদের প্রথম জামাত সকাল ৭টায় অনুষ্ঠিত হবে। এতে ইমামতি করবেন বায়তুল মুকাররম জাতীয় মসজিদের সিনিয়র পেশ ইমাম হাফেজ মুফতি মাওলানা মো. মিজানুর রহমান। বায়তুল মুকাররমের মুয়াজ্জিন হাফেয ক্বারী কাজী মাসুদুর রহমান মুকাব্বির হিসেবে থাকবেন।

দ্বিতীয় জামাত হবে সকাল ৭টা ৫০ মিনিটে। এতে ইমাম থাকবেন বায়তুল মোকারমের পেশ ইমাম হাফেজ মুফতি মুহিব্বুল্লাহিল বাকী নদভী। মুকাব্বির থাকবেন মুয়াজ্জিন হাফেয ক্বারী হাবিবুর রহমান মেশকাত।

সকাল ৮টা ৪৫ মিনিটে হবে ঈদের তৃতীয় জামাত। পেশ ইমাম হাফেজ মাওলানা এহসানুল হক এই জামাতে ইমামতি করবেন, মুকাব্বির থাকবেন মুয়াজ্জিন মাওলানা ইসহাক।

চতুর্থ জামাতে ইমামতি করবেন পেশ ইমাম মাওলানা মহিউদ্দিন কাসেম, মোকাব্বির হবেন চিফ খাদেম মো. শহীদুল্লাহ। এই জামাতটি সকাল ৯ টা ৩৫ মিনিটে অনুষ্ঠিত হবে।

পঞ্চম জামাত হবে সকাল সাড়ে ১০টায়। এতে ইমামতি করবেন ইসলামিক ফাউন্ডেশনের মুহাদ্দিস হাফেজ মাওলানা ওয়ালিয়ূর রহমান খান। মুকাব্বির থাকবেন বায়তুল মোকাররমের খাদেম হাফেজ মো. আব্দুল মান্নান।

ষষ্ঠ ও সর্বশেষ জামাত হবে বেলা ১১টা ১০ মিনিটে। এই জামাতে ইমাম থাকবেন ইসলামিক ফাউন্ডেশনের সাবেক উপ-পরিচালক মাওলানা মুহাম্মদ আব্দুর রব মিয়া। মুকাব্বির থাকবেন বায়তুল মোকাররমের খাদেম হাফেজ মো. আব্দুর রাজ্জাক।

যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করে পবিত্র ঈদুল আজহার নামাজের জামাআত আদায় প্রসঙ্গে ১৩ দফা নির্দেশনাও দেয়া হয়েছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে