Homeলাইফ-স্টাইলশীতে সতেজ থাকার ১০ উপায়

শীতে সতেজ থাকার ১০ উপায়

লাইফস্টাইল ডেস্ক:

শীত মানেই শুষ্কতার কাল। শীত এলেই মানুষের ত্বকে রুক্ষভাব স্পষ্ট হয়ে ওঠে। শীত নিবারণের পাশাপাশি তখন ত্বকের সতেজতা ধরে রাখতে প্রয়োজন পড়ে বাড়তি যত্নের। নিয়মিত কিছু যত্ন নিলেই আপনার ত্বক আর শুষ্ক হবে না। এই শীতেও থাকবে সতেজ। চলুন জেনে নিই সেগুলো কী-

১. প্রয়োজন অনুসারে গরম কাপড় ব্যবহার করুন। শরীরের উন্মুক্ত অংশগুলোকে ঢেকে রাখুন।

২. ত্বকে ময়েশ্চারাইজার অথবা গ্লিসারিনের সঙ্গে সমপরিমাণ পানি মিশিয়ে মাখুন। সাইট্রাস ফল যেমন আপেল, কমলা, লেবু ইত্যাদির রস লাগিয়ে ১০ থেকে ১৫ মিনিট রেখে ধুয়ে ফেলুন। ত্বক সতেজ থাকবে।

৩. মুখে ভালো কোন কোল্ড ক্রিম ব্যবহার করুন। পাকা কলা, পাকা পেঁপে, সয়াবিনের গুঁড়ো অথবা ময়দা পেস্ট করে মুখে লাগান। ১০ থেকে ১৫ মিনিট রাখুন। এরপর কুসুম গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। ত্বকে টানটান ভাব আসবে।

৪. ভ্যাসলিন সংগে রাখুন। ঠোঁট শুকিয়ে গেলেই ভ্যাসলিন মাখুন। ঠোঁটের শুষ্ক আবরণ টেনে তুলবেন না। জিভ দিয়ে বার বার ঠোঁট লেহন করবেন না। ঠোঁট ফাটা থেকে রক্ষা পেতে রাতে ঘুমোতে যাবার আগে মধু এবং গ্লিসারিন একসাথে মিশিয়ে ঠোঁটে লাগাতে পারেন।

৫. মেকআপ ত্বককে শুষ্ক করে ফেলে এবং ত্বকে হাইপার পিগমেন্টেশন করে ফলে ত্বক কালো হয়ে যায়। তাই খুব প্রয়োজন না হলে মেকআপ এড়িয়ে যাওয়ার চেষ্টা করুন।

৬. শীতে মুখ ধোয়ার ক্ষেত্রে সাবানের পরিবর্তে ত্বকের ধরন অনুযায়ী ক্লিনজার ব্যবহার করুন। দুধ, ময়দা এবং ঘিয়ের মিশ্রণ একটি ভালো ক্লিনজার যা আপনার ত্বককে আর্দ্রতা থেকে বাঁচাবে।

৭. বেশিক্ষণ রোদে থাকবেন না। রোদে বের হলে সানব্লকার বা সান প্রটেকটিং ফ্যাক্টর ২৫ বা তার বেশি ব্যবহার করতে পারেন।

৮. শীতে গোসলের সময় অত্যধিক গরম পানি ব্যবহার করবেন না। গরম পানি ত্বকের তেল শোষণ করে ত্বককে শুষ্ক করে তোলে। তাই গোসলের সময় ত্বকের জন্য সহনীয় কুসুম গরম পানি ব্যবহার করতে পারেন।

৯. আবহাওয়া শুষ্ক থাকায় এ সময় খুশকি বাড়ে। খুশকি কমাতে চুলের গোড়ায় হট অয়েল বা লেবুর রস ম্যাসাজ করতে পারেন। অথবা মেডিকেটেড শ্যাম্পু ব্যবহার করলে ভালো হয়। কিটোকোনাজল, অ্যালোভেরা বা টার শ্যাম্পু ব্যবহার করুন।

১০. প্রতিদিন ভোরে আধ গ্লাস কুসুম গরম পানিতে এক চা চামচ মধু ও এক চা চামচ লেবুর রস মিশিয়ে পান করুন। আপনার ত্বক থাকবে লাবন্যময়।

RELATED ARTICLES

Most Popular