শিক্ষকদের দাবি আদায়ের লক্ষ্যে সপ্তম দিনের মত অবস্থান কর্মসূচি

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • Update Time : ০৬:২৪:৫৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৪ মে ২০২৪
  • / ২২ Time View

কুবি প্রতিনিধি:

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের (কুবি) উপাচার্য অধ্যাপক ড. এএফএম আবদুল মঈন ও কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড.মো: আসাদুজ্জামানের নেতৃত্বে অছাত্র ও বহিরাগত কর্তৃক শিক্ষকদের উপর হামলার প্রতিবাদে উভয়ের পদত্যাগ ও অপসারণের এক দফা দাবিতে সপ্তম দিনের মতো অবস্থান কর্মসূচি পালন করেছে শিক্ষক সমিতি।

আজ মঙ্গলবার (১৩ মে) দুপুর ১২টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সামনে এ কর্মসূচি শুরু হয়।

এ বিষয়ে লোক প্রশাসন বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. জান্নাতুল ফেরদৌস বলেন, আমরা আগেও গণমাধ্যমকে অবগত করেছি আমরা এক দফা দাবিতে ( উপাচার্য ও কোষাধ্যক্ষের পদত্যাগ ) এই কর্মসূচি পালন করে যাচ্ছি। উপাচার্যের নেতৃত্বে বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষকদের উপর হামলার পরে আমরা কর্মপরিবেশ নিয়ে শঙ্কায় আছি। আমাদের ছাত্র-ছাত্রীদের ভবিষ্যৎ চিন্তা করে আমরা একটা নিরাপদ ক্যাম্পাস দাবি করি। সেটার জন্য উনার(উপাচার্য) পদত্যাগ আবশ্যক। উপাচার্য যদি সেচ্ছায় পদত্যাগ না করলে সরকারি কী পদক্ষেপ নেয় সেটা দেখবো। সর্বোপরি ছাত্র শিক্ষকদের জন্য যেন একটি সুস্থ পরিবেশ তৈরি হয়, সে লক্ষ্যে আমরা প্রতিদিন আমাদের কর্মসূচি চালিয়ে যাবো যতদিন আমাদের দাবি পূরণ না হয়।

উল্লেখ্য, গত ২৮ এপ্রিল দুপুর ১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. এএফএম আবদুল মঈন, প্রক্টর (ভারপ্রাপ্ত) কাজী ওমর সিদ্দিকী, সহকারী প্রক্টর অমিত দত্ত, জাহিদ হাসান ও মোশাররফ হোসেন এবং আইকিউএসির পরিচালক ড. রশিদুল ইসলাম শেখের নেতৃত্বে অছাত্র ও বহিরাগত সন্ত্রাসী কর্তৃক শিক্ষকদের উপর হামলা করা হয়।

Tag :

Please Share This Post in Your Social Media

শিক্ষকদের দাবি আদায়ের লক্ষ্যে সপ্তম দিনের মত অবস্থান কর্মসূচি

Update Time : ০৬:২৪:৫৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৪ মে ২০২৪

কুবি প্রতিনিধি:

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের (কুবি) উপাচার্য অধ্যাপক ড. এএফএম আবদুল মঈন ও কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড.মো: আসাদুজ্জামানের নেতৃত্বে অছাত্র ও বহিরাগত কর্তৃক শিক্ষকদের উপর হামলার প্রতিবাদে উভয়ের পদত্যাগ ও অপসারণের এক দফা দাবিতে সপ্তম দিনের মতো অবস্থান কর্মসূচি পালন করেছে শিক্ষক সমিতি।

আজ মঙ্গলবার (১৩ মে) দুপুর ১২টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সামনে এ কর্মসূচি শুরু হয়।

এ বিষয়ে লোক প্রশাসন বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. জান্নাতুল ফেরদৌস বলেন, আমরা আগেও গণমাধ্যমকে অবগত করেছি আমরা এক দফা দাবিতে ( উপাচার্য ও কোষাধ্যক্ষের পদত্যাগ ) এই কর্মসূচি পালন করে যাচ্ছি। উপাচার্যের নেতৃত্বে বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষকদের উপর হামলার পরে আমরা কর্মপরিবেশ নিয়ে শঙ্কায় আছি। আমাদের ছাত্র-ছাত্রীদের ভবিষ্যৎ চিন্তা করে আমরা একটা নিরাপদ ক্যাম্পাস দাবি করি। সেটার জন্য উনার(উপাচার্য) পদত্যাগ আবশ্যক। উপাচার্য যদি সেচ্ছায় পদত্যাগ না করলে সরকারি কী পদক্ষেপ নেয় সেটা দেখবো। সর্বোপরি ছাত্র শিক্ষকদের জন্য যেন একটি সুস্থ পরিবেশ তৈরি হয়, সে লক্ষ্যে আমরা প্রতিদিন আমাদের কর্মসূচি চালিয়ে যাবো যতদিন আমাদের দাবি পূরণ না হয়।

উল্লেখ্য, গত ২৮ এপ্রিল দুপুর ১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. এএফএম আবদুল মঈন, প্রক্টর (ভারপ্রাপ্ত) কাজী ওমর সিদ্দিকী, সহকারী প্রক্টর অমিত দত্ত, জাহিদ হাসান ও মোশাররফ হোসেন এবং আইকিউএসির পরিচালক ড. রশিদুল ইসলাম শেখের নেতৃত্বে অছাত্র ও বহিরাগত সন্ত্রাসী কর্তৃক শিক্ষকদের উপর হামলা করা হয়।