রুমায় সোনালী ব্যাংকের টাকা অক্ষত আছে: সিআইডি

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • Update Time : ০৭:০৪:০২ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩ এপ্রিল ২০২৪
  • / ২৫ Time View

বান্দরবানের রুমায় সোনালী ব্যাংকের শাখার ভল্টে থাকা একটি টাকাও নিয়ে যেতে পারেনি দুর্বৃত্তরা বলে জানিয়েছেন চট্টগ্রাম সিআইডি শাখার অতিরিক্ত ডিআইজি মো. শাহ নেওয়াজ খালেদ। বুধবার (৩ এপ্রিল) দুপুর ৩টার দিকে তিনি এতথ্য নিশ্চিত করেছেন।

অতিরিক্ত ডিআইজি সিআইডি চট্টগ্রাম মো. শাহ নেওয়াজ খালেদ বলেন, ‌‘আমরা কক্সবাজার থেকে দুইটি ক্রাইম সিন টিম ঘটনাস্থলে এসে বিভিন্ন আলামত সংগ্রহ করেছি। চাবি দিয়ে খুলে ভল্টে রাখা সমস্ত টাকা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করেছি। ভল্টে রাখা ১ কোটি ৫৯ লাখ ৪৬ হাজার টাকা অক্ষত অবস্থায় আছে। দুর্বৃত্তরা ভল্ট খুলতে পারেনি।’

এর আগে আজ সকালে হামলা হওয়া রুমা সোনালী ব্যাংক পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের জেলা প্রশাসক শাহ্ মোজাহিদ উদ্দিন ও পুলিশ সুপার সৈকত শাহীন বলেন, পুলিশের ৮টি চীনা রাইফেল, ২টি এসএমজি ও ব্যাংকের নিরাপত্তা কর্মী আনসারের ব্যবহৃত ৪টি শর্টগানসহ মোট ১৪টি বন্দুক ও ৩৮০ রাউন্ড গুলি নিয়ে গেছে দুর্বৃত্তরা। তারা ব্যাংকটির রুমা শাখার ম্যানেজার মো. নেজাম উদ্দিনকে অপহরণ করে নিয়ে গেছেন। সরকারি সম্পদ ১৪ টি বন্দুক ও রুমা শাখার ব্যাংক ম্যানেজারকে উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি।

Tag :

Please Share This Post in Your Social Media

রুমায় সোনালী ব্যাংকের টাকা অক্ষত আছে: সিআইডি

Update Time : ০৭:০৪:০২ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩ এপ্রিল ২০২৪

বান্দরবানের রুমায় সোনালী ব্যাংকের শাখার ভল্টে থাকা একটি টাকাও নিয়ে যেতে পারেনি দুর্বৃত্তরা বলে জানিয়েছেন চট্টগ্রাম সিআইডি শাখার অতিরিক্ত ডিআইজি মো. শাহ নেওয়াজ খালেদ। বুধবার (৩ এপ্রিল) দুপুর ৩টার দিকে তিনি এতথ্য নিশ্চিত করেছেন।

অতিরিক্ত ডিআইজি সিআইডি চট্টগ্রাম মো. শাহ নেওয়াজ খালেদ বলেন, ‌‘আমরা কক্সবাজার থেকে দুইটি ক্রাইম সিন টিম ঘটনাস্থলে এসে বিভিন্ন আলামত সংগ্রহ করেছি। চাবি দিয়ে খুলে ভল্টে রাখা সমস্ত টাকা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করেছি। ভল্টে রাখা ১ কোটি ৫৯ লাখ ৪৬ হাজার টাকা অক্ষত অবস্থায় আছে। দুর্বৃত্তরা ভল্ট খুলতে পারেনি।’

এর আগে আজ সকালে হামলা হওয়া রুমা সোনালী ব্যাংক পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের জেলা প্রশাসক শাহ্ মোজাহিদ উদ্দিন ও পুলিশ সুপার সৈকত শাহীন বলেন, পুলিশের ৮টি চীনা রাইফেল, ২টি এসএমজি ও ব্যাংকের নিরাপত্তা কর্মী আনসারের ব্যবহৃত ৪টি শর্টগানসহ মোট ১৪টি বন্দুক ও ৩৮০ রাউন্ড গুলি নিয়ে গেছে দুর্বৃত্তরা। তারা ব্যাংকটির রুমা শাখার ম্যানেজার মো. নেজাম উদ্দিনকে অপহরণ করে নিয়ে গেছেন। সরকারি সম্পদ ১৪ টি বন্দুক ও রুমা শাখার ব্যাংক ম্যানেজারকে উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি।