রাজধানীর ভিকারুননিসার এক শিক্ষিকার শ্বাসকষ্টে মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • Update Time : ০৫:০৫:০৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩ জুন ২০২০
  • / ১৪৬ Time View

রাজধানীর ভিকারুননিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজের ইংলিশ ভার্সনের শিক্ষিকা তাজিম বিনতে রহমান (৪০) ইন্তেকাল করেছেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

বুধবার (৩ জুন) বিকেলে রাজধানীর ধানমন্ডির আয়শা মেমোরিয়াল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। তিনি শ্বাসকষ্টে ভুগছিলেন। আজ এশার পর তার মরদেহ শাহাজাহানপুর কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে।

ভিকারুননিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক ফওজিয়া বলেন, ভিকারুননিসার বেইলি রোডের প্রধান শাখার ইংলিশ ভার্সনের শিক্ষিকা ছিলেন তাজিম রহমান। দীর্ঘদিন ধরে তিনি এ প্রতিষ্ঠানে শিক্ষকতা করে আসছিলেন।

তিনি বলেন, গত ২৫ মে একটি কন্যাসন্তানের জন্ম দেন তাজিম রহমান। সেদিন শ্বাস-প্রশ্বাসের সমস্যা হওয়ায় তাকে রাজধানীর বেশ কয়েকটি নামিদামি হাসপাতালে নেয়া হলেও ভর্তি নেয়নি। এরপর এ দিন বিকেলে ধানমন্ডির আয়শা মেমোরিয়াল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। রাতে অপারেশনের মাধ্যমে তার কন্যাসন্তান জন্ম নেয়।

অধ্যাপক ফওজিয়া বলেন, সন্তান প্রসবের পর কয়েকদিন ভালো ছিলেন তাজিম রহমান। তিনি আয়শা মেমোরিয়াল হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন। গতকাল মঙ্গলবার রাতে তার শ্বাসকষ্ট শুরু হলে ভেন্টিলেটরের মাধ্যমে তাকে শ্বাস নেয়ার ব্যবস্থা করা হয়। পরে বুধবার বিকেলে চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন। তার কোভিড-১৯ টেস্ট করা হলে ফলাফল নেগেটিভ আসে।

তাজিম রহমানের পরিবারের স্বজনরা জানান, তার মরদেহ বুধবার রাতে রাজধানীর শাহজাহানপুর কবরস্থানে বাদ এশা দাফন করা হয়েছে।

Tag :

Please Share This Post in Your Social Media

রাজধানীর ভিকারুননিসার এক শিক্ষিকার শ্বাসকষ্টে মৃত্যু

Update Time : ০৫:০৫:০৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩ জুন ২০২০

রাজধানীর ভিকারুননিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজের ইংলিশ ভার্সনের শিক্ষিকা তাজিম বিনতে রহমান (৪০) ইন্তেকাল করেছেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

বুধবার (৩ জুন) বিকেলে রাজধানীর ধানমন্ডির আয়শা মেমোরিয়াল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। তিনি শ্বাসকষ্টে ভুগছিলেন। আজ এশার পর তার মরদেহ শাহাজাহানপুর কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে।

ভিকারুননিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক ফওজিয়া বলেন, ভিকারুননিসার বেইলি রোডের প্রধান শাখার ইংলিশ ভার্সনের শিক্ষিকা ছিলেন তাজিম রহমান। দীর্ঘদিন ধরে তিনি এ প্রতিষ্ঠানে শিক্ষকতা করে আসছিলেন।

তিনি বলেন, গত ২৫ মে একটি কন্যাসন্তানের জন্ম দেন তাজিম রহমান। সেদিন শ্বাস-প্রশ্বাসের সমস্যা হওয়ায় তাকে রাজধানীর বেশ কয়েকটি নামিদামি হাসপাতালে নেয়া হলেও ভর্তি নেয়নি। এরপর এ দিন বিকেলে ধানমন্ডির আয়শা মেমোরিয়াল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। রাতে অপারেশনের মাধ্যমে তার কন্যাসন্তান জন্ম নেয়।

অধ্যাপক ফওজিয়া বলেন, সন্তান প্রসবের পর কয়েকদিন ভালো ছিলেন তাজিম রহমান। তিনি আয়শা মেমোরিয়াল হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন। গতকাল মঙ্গলবার রাতে তার শ্বাসকষ্ট শুরু হলে ভেন্টিলেটরের মাধ্যমে তাকে শ্বাস নেয়ার ব্যবস্থা করা হয়। পরে বুধবার বিকেলে চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন। তার কোভিড-১৯ টেস্ট করা হলে ফলাফল নেগেটিভ আসে।

তাজিম রহমানের পরিবারের স্বজনরা জানান, তার মরদেহ বুধবার রাতে রাজধানীর শাহজাহানপুর কবরস্থানে বাদ এশা দাফন করা হয়েছে।