বুয়েটে ছাত্ররাজনীতি ফেরাতে সাদ্দামের আল্টিমেটাম

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • Update Time : ০৪:২৪:১৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ৩১ মার্চ ২০২৪
  • / ৩৬ Time View

অনতিবিলম্বে বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বুয়েট) ছাত্ররাজনীতি ফেরাতে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে আলটিমেটাম দিয়েছেন ছাত্রলীগ সভাপতি সাদ্দাম হোসেন। পাশাপাশি বুয়েট শিক্ষার্থী ও ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নির্বাহী সংসদের কার্যনির্বাহী সদস্য ইমতিয়াজ হোসেন রাহিম রাব্বির আবাসিক সিট ফিরিয়ে দেয়ার দাবি জানান তিনি। রোববার (৩১ মার্চ) কেন্দ্রীয় শহিদ মিনারের পাদদেশে প্রতিবাদ সমাবেশে তিনি এই আল্টিমেটাম দেন।

সাদ্দাম হোসেন বলেন, বুয়েট প্রশাসনের কাছে আমাদের আহ্বান থাকবে অনতিবিলম্বে ক্যাম্পাসে ছাত্ররাজনীতি চালু করতে হবে। যে নিয়ম আপনারা শুরু করেছেন সেটি কালাকানুন, সেটি কালো আইন। বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাদেশে বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্ররাজনীতি বন্ধ করার কোনো আইন নাই। আর যদি থেকেও থাকে সেটি সংবিধানবিরাধী।

তিনি বলেন, আমরা আজ শহিদ মিনার থেকে বুয়েট প্রশাসনকে আলটিমেটাম দিচ্ছি, অনতিবিলম্বে ছাত্ররাজনীতি চালু করতে হবে। স্বল্পতম সময়ের মধ্যে ছাত্র সংসদ নির্বাচন দিতে হবে। বুয়েট শিক্ষার্থী ও ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ইমতিয়াজ হোসেন রাব্বির আবাসিক সিটও ফিরিয়ে দিতে হবে।

সমাবেশে নেতাকর্মীদের ‘মৌলবাদের বিরুদ্ধে, ডাইরেক্ট অ্যাকশন’, ‘শিবিরের বিরুদ্ধে, ডাইরেক্ট অ্যাকশন’, ‘জামায়াত-শিবির-রাজাকার, তাড়াতাড়ি বাংলা ছাড়’, ‘শিবিরে আস্তানা, ভেঙে দাও গুঁড়িয়ে দাও’ ছাড়াও বিভিন্ন ধরনের স্লোগান দিতে দেখা যায় নেতাকর্মীদের।

ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নির্বাহী সংসদের সাধারণ সম্পাদক শেখ ওয়ালি আসিফ ইনানের সঞ্চালনায় প্রতিবাদ সমাবেশে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি মাজহারুল কবির শয়ন, সাধারণ সম্পাদক তানভীর হাসান সৈকতসহ ঢাবি অধিভুক্ত সরকারি ৭ কলেজ ও ঢাকা মহানগর দক্ষিণ ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

Please Share This Post in Your Social Media

বুয়েটে ছাত্ররাজনীতি ফেরাতে সাদ্দামের আল্টিমেটাম

Update Time : ০৪:২৪:১৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ৩১ মার্চ ২০২৪

অনতিবিলম্বে বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বুয়েট) ছাত্ররাজনীতি ফেরাতে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে আলটিমেটাম দিয়েছেন ছাত্রলীগ সভাপতি সাদ্দাম হোসেন। পাশাপাশি বুয়েট শিক্ষার্থী ও ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নির্বাহী সংসদের কার্যনির্বাহী সদস্য ইমতিয়াজ হোসেন রাহিম রাব্বির আবাসিক সিট ফিরিয়ে দেয়ার দাবি জানান তিনি। রোববার (৩১ মার্চ) কেন্দ্রীয় শহিদ মিনারের পাদদেশে প্রতিবাদ সমাবেশে তিনি এই আল্টিমেটাম দেন।

সাদ্দাম হোসেন বলেন, বুয়েট প্রশাসনের কাছে আমাদের আহ্বান থাকবে অনতিবিলম্বে ক্যাম্পাসে ছাত্ররাজনীতি চালু করতে হবে। যে নিয়ম আপনারা শুরু করেছেন সেটি কালাকানুন, সেটি কালো আইন। বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাদেশে বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্ররাজনীতি বন্ধ করার কোনো আইন নাই। আর যদি থেকেও থাকে সেটি সংবিধানবিরাধী।

তিনি বলেন, আমরা আজ শহিদ মিনার থেকে বুয়েট প্রশাসনকে আলটিমেটাম দিচ্ছি, অনতিবিলম্বে ছাত্ররাজনীতি চালু করতে হবে। স্বল্পতম সময়ের মধ্যে ছাত্র সংসদ নির্বাচন দিতে হবে। বুয়েট শিক্ষার্থী ও ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ইমতিয়াজ হোসেন রাব্বির আবাসিক সিটও ফিরিয়ে দিতে হবে।

সমাবেশে নেতাকর্মীদের ‘মৌলবাদের বিরুদ্ধে, ডাইরেক্ট অ্যাকশন’, ‘শিবিরের বিরুদ্ধে, ডাইরেক্ট অ্যাকশন’, ‘জামায়াত-শিবির-রাজাকার, তাড়াতাড়ি বাংলা ছাড়’, ‘শিবিরে আস্তানা, ভেঙে দাও গুঁড়িয়ে দাও’ ছাড়াও বিভিন্ন ধরনের স্লোগান দিতে দেখা যায় নেতাকর্মীদের।

ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নির্বাহী সংসদের সাধারণ সম্পাদক শেখ ওয়ালি আসিফ ইনানের সঞ্চালনায় প্রতিবাদ সমাবেশে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি মাজহারুল কবির শয়ন, সাধারণ সম্পাদক তানভীর হাসান সৈকতসহ ঢাবি অধিভুক্ত সরকারি ৭ কলেজ ও ঢাকা মহানগর দক্ষিণ ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।