বিদেশে যেতে পারবেন ড. ইউনূস: আদালত

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • Update Time : ০৪:৩১:৫৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ১১ মার্চ ২০২৪
  • / ৩২ Time View

নোবেল বিজয়ী অর্থনীতিবিদ ও গ্রামীণ ব্যাংকের সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) ড. মুহাম্মদ ইউনূস বিদেশ যেতে পারবেন বলে আদেশ দিয়েছেন আদালত। সোমবার (১১ মার্চ) দুপুরে শুনানি শেষে এ আদেশ দেন আদালত। রোববার (১০ মার্চ) বিদেশ যেতে চেয়ে শ্রম আপিল ট্রাইব্যুনালের বিচারক এম এ আউয়ালের আদালতে এই আবেদন করেন ড. ইউনূস।

আদালতকে অবহিত করে ড. ইউনূসের আইনজীবী বলেন, ড. ইউনূস আগামীকাল মঙ্গলবার (১২ মার্চ) দেশের বাইরে যাবেন এবং ফিরবেন আগামী ৪ এপ্রিল।

এ সময় কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান অধিদপ্তরের আইনজীবী খুরশীদ আলম খান আদালতকে বলেন ড. ইউনূস যেনো বিদেশ থেকে ফিরে আদালতকে অভহিত করেন।

পাল্টা যুক্তি দিয়ে ড. ইউনূসের আইনজীবী ব্যারিস্টার আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, এ বিষয়ে হাইকোর্টের কোন নির্দেশনা নেই। কাজেই এটা চাওয়া অবান্তর। পরে আদালত এটি খারিজ করে দেন।

এর আগে ৫ ফেব্রুয়ারি শ্রম আইন লঙ্ঘনের মামলায় গ্রামীণ টেলিকমের চেয়ারম্যান নোবেলজয়ী ড. মুহাম্মদ ইউনূসসহ প্রতিষ্ঠানটির চার শীর্ষ কর্মকর্তা আদালতের অনুমতি ছাড়া বিদেশ যেতে পারবেন না বলে আদেশ দেন আদালত।

আদেশে বলা হয়, শ্রম আইন লঙ্ঘনের মামলায় ছয় মাসের সাজার বিরুদ্ধে আপিল নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত ড. মুহাম্মদ ইউনূসসহ চারজনকে বিদেশে যেতে হলে শ্রম আপিল ট্রাইব্যুনালকে জানিয়ে যেতে হবে। পাশাপাশি শ্রম আদালতের দেয়া ছয় মাসের সাজা শ্রম আপিল ট্রাইব্যুনালে স্থগিত করে জামিন দেয়া কেন অবৈধ হবে না তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেন হাইকোর্ট।

এদিকে শ্রম আইন লঙ্ঘন মামলায় ড. মুহাম্মদ ইউনূসসহ ৪ আসামির জামিনের মেয়াদ ১৬ এপ্রিল পর্যন্ত বাড়িয়েছেন ঢাকার শ্রম আদালত। সোমবার (১১ মার্চ) ড. ইউনূস ছাড়াও গ্রামীণ টেলিকমের তিন শীর্ষ কর্মকর্তার জামিনের মেয়াদ বৃদ্ধি করেন আদালত।

লিখিত আদেশে বলা হয়, ১৬ এপ্রিল পর্যন্ত ড. ইউনূস জামিনে থাকবেন। ওইদিন তিনিসহ ৪ জনকে ফের হাজির হতে হবে। আদালত আরও বলেন, ১৬ এপ্রিল আপিল শুনানির দিন ধার্য করা হলো। একই সঙ্গে শ্রম আদালত থেকে পাঠানো মামলার এলসিআর গ্রহণ করা হলো।

Tag :

Please Share This Post in Your Social Media

বিদেশে যেতে পারবেন ড. ইউনূস: আদালত

Update Time : ০৪:৩১:৫৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ১১ মার্চ ২০২৪

নোবেল বিজয়ী অর্থনীতিবিদ ও গ্রামীণ ব্যাংকের সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) ড. মুহাম্মদ ইউনূস বিদেশ যেতে পারবেন বলে আদেশ দিয়েছেন আদালত। সোমবার (১১ মার্চ) দুপুরে শুনানি শেষে এ আদেশ দেন আদালত। রোববার (১০ মার্চ) বিদেশ যেতে চেয়ে শ্রম আপিল ট্রাইব্যুনালের বিচারক এম এ আউয়ালের আদালতে এই আবেদন করেন ড. ইউনূস।

আদালতকে অবহিত করে ড. ইউনূসের আইনজীবী বলেন, ড. ইউনূস আগামীকাল মঙ্গলবার (১২ মার্চ) দেশের বাইরে যাবেন এবং ফিরবেন আগামী ৪ এপ্রিল।

এ সময় কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান অধিদপ্তরের আইনজীবী খুরশীদ আলম খান আদালতকে বলেন ড. ইউনূস যেনো বিদেশ থেকে ফিরে আদালতকে অভহিত করেন।

পাল্টা যুক্তি দিয়ে ড. ইউনূসের আইনজীবী ব্যারিস্টার আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, এ বিষয়ে হাইকোর্টের কোন নির্দেশনা নেই। কাজেই এটা চাওয়া অবান্তর। পরে আদালত এটি খারিজ করে দেন।

এর আগে ৫ ফেব্রুয়ারি শ্রম আইন লঙ্ঘনের মামলায় গ্রামীণ টেলিকমের চেয়ারম্যান নোবেলজয়ী ড. মুহাম্মদ ইউনূসসহ প্রতিষ্ঠানটির চার শীর্ষ কর্মকর্তা আদালতের অনুমতি ছাড়া বিদেশ যেতে পারবেন না বলে আদেশ দেন আদালত।

আদেশে বলা হয়, শ্রম আইন লঙ্ঘনের মামলায় ছয় মাসের সাজার বিরুদ্ধে আপিল নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত ড. মুহাম্মদ ইউনূসসহ চারজনকে বিদেশে যেতে হলে শ্রম আপিল ট্রাইব্যুনালকে জানিয়ে যেতে হবে। পাশাপাশি শ্রম আদালতের দেয়া ছয় মাসের সাজা শ্রম আপিল ট্রাইব্যুনালে স্থগিত করে জামিন দেয়া কেন অবৈধ হবে না তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেন হাইকোর্ট।

এদিকে শ্রম আইন লঙ্ঘন মামলায় ড. মুহাম্মদ ইউনূসসহ ৪ আসামির জামিনের মেয়াদ ১৬ এপ্রিল পর্যন্ত বাড়িয়েছেন ঢাকার শ্রম আদালত। সোমবার (১১ মার্চ) ড. ইউনূস ছাড়াও গ্রামীণ টেলিকমের তিন শীর্ষ কর্মকর্তার জামিনের মেয়াদ বৃদ্ধি করেন আদালত।

লিখিত আদেশে বলা হয়, ১৬ এপ্রিল পর্যন্ত ড. ইউনূস জামিনে থাকবেন। ওইদিন তিনিসহ ৪ জনকে ফের হাজির হতে হবে। আদালত আরও বলেন, ১৬ এপ্রিল আপিল শুনানির দিন ধার্য করা হলো। একই সঙ্গে শ্রম আদালত থেকে পাঠানো মামলার এলসিআর গ্রহণ করা হলো।