বর্ষীয়ান সাংবাদিক, মুক্তিযোদ্ধা খন্দকার মোজাম্মেল হকের রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • Update Time : ০১:১৬:৫৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩০ জুন ২০২০
  • / ১১৫ Time View
কমল পাটোয়ারি,ছাগলনাইয়া প্রতিনিধি:
বর্ষীয়ান সাংবাদিক, মুক্তিযোদ্ধা খন্দকার মোজাম্মেল হকের (৭১) রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন সম্পন্ন হয়েছে। জাতীয় প্রেস ক্লাবে প্রথম নামাজে জানাজা শেষে মরহুমের লাশ তাঁর গ্রামের বাড়ি ফেনীর ছাগলনাইয়া পূর্ব সোনাপুরে নিয়ে যাওয়া হয়।
.
বিকেল ৩ টায় এই বীর সন্তানকে রাষ্ট্রীয় মর্যাদা সরুপ গার্ড অব অনার প্রদান করা হয়।
.
দ্বিতীয় জানাজা শেষে মরহুমের কফিনে পুষ্পমাল্য অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন ছাগলনাইয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা চেয়ারম্যান মেজবাউল হায়দার চৌধুরী সোহেল ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সাজিয়া তাহের।
.
দ্বিতীয় নামাজে জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে মরহুমকে দাফন সম্পন্ন করা হয়। এর আগে,রাজধানীর এএনজেড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার বিকালে ৪টার দিকে মারা যান।
.
মঙ্গলবার (৩০ জুন ) তার মরদেহ ফেনী জেলার ছাগলনাইয়া উপজেলায় তার নিজ বাড়িতে আনা হয়।ফেনীর এ কৃতী সাংবাদিক মরণকালে স্ত্রী, তিন ছেলে, দুই মেয়ে,৩ ভাই ৫ বোন এবং অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।
Tag :

Please Share This Post in Your Social Media

বর্ষীয়ান সাংবাদিক, মুক্তিযোদ্ধা খন্দকার মোজাম্মেল হকের রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন

Update Time : ০১:১৬:৫৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩০ জুন ২০২০
কমল পাটোয়ারি,ছাগলনাইয়া প্রতিনিধি:
বর্ষীয়ান সাংবাদিক, মুক্তিযোদ্ধা খন্দকার মোজাম্মেল হকের (৭১) রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন সম্পন্ন হয়েছে। জাতীয় প্রেস ক্লাবে প্রথম নামাজে জানাজা শেষে মরহুমের লাশ তাঁর গ্রামের বাড়ি ফেনীর ছাগলনাইয়া পূর্ব সোনাপুরে নিয়ে যাওয়া হয়।
.
বিকেল ৩ টায় এই বীর সন্তানকে রাষ্ট্রীয় মর্যাদা সরুপ গার্ড অব অনার প্রদান করা হয়।
.
দ্বিতীয় জানাজা শেষে মরহুমের কফিনে পুষ্পমাল্য অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন ছাগলনাইয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা চেয়ারম্যান মেজবাউল হায়দার চৌধুরী সোহেল ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সাজিয়া তাহের।
.
দ্বিতীয় নামাজে জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে মরহুমকে দাফন সম্পন্ন করা হয়। এর আগে,রাজধানীর এএনজেড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার বিকালে ৪টার দিকে মারা যান।
.
মঙ্গলবার (৩০ জুন ) তার মরদেহ ফেনী জেলার ছাগলনাইয়া উপজেলায় তার নিজ বাড়িতে আনা হয়।ফেনীর এ কৃতী সাংবাদিক মরণকালে স্ত্রী, তিন ছেলে, দুই মেয়ে,৩ ভাই ৫ বোন এবং অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।