প্রধানমন্ত্রী পাটকল শ্রমিকদের দায়িত্ব নিয়েছেন: পাটমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • Update Time : ০৮:৩১:১৬ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ৩ জুলাই ২০২০
  • / ১১২ Time View
নিজস্ব প্রতিনিধিঃ
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পাটকল শ্রমিকদের দায়িত্ব নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী।

শ্রমিকদের আর কোনো দুশ্চিন্তা করতে হবে না, প্রধানমন্ত্রী পাটকল শ্রমিকদের দায়িত্ব নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী। শুক্রবার (৩রা জুলাই) রাজধানীর সিদ্ধেশ্বরীতে নিজ বাসভবনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন মন্ত্রী।

এ সময় তিনি আরো বলেন, লোকসানের কারণে এক বছর আগেই পাটকল বন্ধ করে দেয়ার সিদ্ধান্ত হয়।’ তবে, পাটকল বন্ধের জন্য শ্রমিকরা দায়ী নয় জানিয়ে পাটমন্ত্রী বলেন, ‘প্রত্যেক শ্রমিককে পুনর্বাসিত করা হবে বলেও জানান গোলাম দস্তগীর গাজী। আর চলতি মাসের বেতন পরবর্তী সপ্তাহে দেয়া হবে বলেও জানান বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী।

বন্ধ হয়ে যাওয়া পাটকল শ্রমিকদের গোল্ডেন হ্যান্ডশেকের পাওনা টাকার মধ্যে অর্ধেক টাকা নগদ পরিশোধ করা হবে। আর বাকী অর্ধেক টাকা সঞ্চয়পত্রের মাধ্যমে পরিশোধ করা হবে বলেও জানান মন্ত্রী। শ্রমিকদের পাওনা টাকা বাজেট ছাড় হবার সাথে সাথে সেপ্টেম্বরে টাকা দিয়ে দেয়া হবে বলেও জানান পাটমন্ত্রী।

সংবাদ সম্মেলনে শ্রম প্রতিমন্ত্রী মন্নজান সুফিয়ান বলেন, ‘রিমডেলিং করে পাটখাতকে আগের জায়গায় ফিরিয়ে আনতেই এই পদক্ষেপ নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।’ উৎপাদন ক্ষমতা হারিয়ে ফেলা মেশিন সাড়িয়ে আধুনিক মেশিন বসিয়ে একই খরচে তিনগুণ উৎপাদন বাড়ানো সম্ভব বলেও মন্তব্য করেন শ্রম প্রতিমন্ত্রী। তিন থেকে চার মাসের মধ্যে পিপিপি অথবা অন্য কোনো মাধ্যমে পাটকলগুলো উৎপাদনে যাবে বলেও প্রত্যাশা করেন মন্নুজান সুফিয়ান।

বিজেএমসি’র ক্রমবর্ধমান লোকসানের কারণে গেল ২৮ জুন পাটকল শ্রমিকদের গোল্ডেন হ্যান্ডশেক দেয়ার সিদ্ধান্তের কথা পাটমন্ত্রী।  এ সময় রাষ্ট্রায়ত্ব পাটকলগুলো আর থাকছেনা জানিয়ে তিনি আরও বলেন, সরকারি পাটকলগুলো পাবলিক প্রাইভেট পার্টনারশিপের (পিপিপি) অধীনে চলবে।

Tag :

Please Share This Post in Your Social Media

প্রধানমন্ত্রী পাটকল শ্রমিকদের দায়িত্ব নিয়েছেন: পাটমন্ত্রী

Update Time : ০৮:৩১:১৬ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ৩ জুলাই ২০২০
নিজস্ব প্রতিনিধিঃ
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পাটকল শ্রমিকদের দায়িত্ব নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী।

শ্রমিকদের আর কোনো দুশ্চিন্তা করতে হবে না, প্রধানমন্ত্রী পাটকল শ্রমিকদের দায়িত্ব নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী। শুক্রবার (৩রা জুলাই) রাজধানীর সিদ্ধেশ্বরীতে নিজ বাসভবনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন মন্ত্রী।

এ সময় তিনি আরো বলেন, লোকসানের কারণে এক বছর আগেই পাটকল বন্ধ করে দেয়ার সিদ্ধান্ত হয়।’ তবে, পাটকল বন্ধের জন্য শ্রমিকরা দায়ী নয় জানিয়ে পাটমন্ত্রী বলেন, ‘প্রত্যেক শ্রমিককে পুনর্বাসিত করা হবে বলেও জানান গোলাম দস্তগীর গাজী। আর চলতি মাসের বেতন পরবর্তী সপ্তাহে দেয়া হবে বলেও জানান বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী।

বন্ধ হয়ে যাওয়া পাটকল শ্রমিকদের গোল্ডেন হ্যান্ডশেকের পাওনা টাকার মধ্যে অর্ধেক টাকা নগদ পরিশোধ করা হবে। আর বাকী অর্ধেক টাকা সঞ্চয়পত্রের মাধ্যমে পরিশোধ করা হবে বলেও জানান মন্ত্রী। শ্রমিকদের পাওনা টাকা বাজেট ছাড় হবার সাথে সাথে সেপ্টেম্বরে টাকা দিয়ে দেয়া হবে বলেও জানান পাটমন্ত্রী।

সংবাদ সম্মেলনে শ্রম প্রতিমন্ত্রী মন্নজান সুফিয়ান বলেন, ‘রিমডেলিং করে পাটখাতকে আগের জায়গায় ফিরিয়ে আনতেই এই পদক্ষেপ নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।’ উৎপাদন ক্ষমতা হারিয়ে ফেলা মেশিন সাড়িয়ে আধুনিক মেশিন বসিয়ে একই খরচে তিনগুণ উৎপাদন বাড়ানো সম্ভব বলেও মন্তব্য করেন শ্রম প্রতিমন্ত্রী। তিন থেকে চার মাসের মধ্যে পিপিপি অথবা অন্য কোনো মাধ্যমে পাটকলগুলো উৎপাদনে যাবে বলেও প্রত্যাশা করেন মন্নুজান সুফিয়ান।

বিজেএমসি’র ক্রমবর্ধমান লোকসানের কারণে গেল ২৮ জুন পাটকল শ্রমিকদের গোল্ডেন হ্যান্ডশেক দেয়ার সিদ্ধান্তের কথা পাটমন্ত্রী।  এ সময় রাষ্ট্রায়ত্ব পাটকলগুলো আর থাকছেনা জানিয়ে তিনি আরও বলেন, সরকারি পাটকলগুলো পাবলিক প্রাইভেট পার্টনারশিপের (পিপিপি) অধীনে চলবে।