চাঁদপুরে স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণঃ ধর্ষক আটক

  • Update Time : ১১:০৬:১৩ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৩ জুলাই ২০২০
  • / 187
এইচ.এম নিজামঃ
পঞ্চম শ্রেণীর স্কুল ছাত্রী ধর্ষণের ঘটনায় পুলিশের সহায়তায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। গত ১২ জুলাই রবিবার ধর্ষণের শিকার স্কুলছাত্রীর মা মনোয়ারা বেগম বাদী হয়ে শিশু ও নারী নির্যাতন আইনে পুলিশের সহায়তায় চাঁদপুর সদর মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।
.
অভিযোগ পেয়ে পুলিশ ব্যাপক তৎপরতা চালিয়ে দিনে দিনেই চাঁদপুর শহরের বাবুরহাট এলাকা থেকে ধর্ষক জাহাঙ্গীর দর্জি (৪০) কে আটক করেন। ধর্ষক জাহাঙ্গীর দর্জি (৪০) কে পুলিশি হেফাজতে জিজ্ঞাসাবাদ করে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।
.
এ ঘটনায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) জাহেদ পারভেজ চৌধুরী সাংবাদিকদের বলেন, চাঁদপুর সদর উপজেলার তরপুরচন্ডী ইউনিয়ন আনন্দবাজার এলাকায় গত চার মাস আগে আসামি জাহাঙ্গীর দর্জি (৪০) পঞ্চম শ্রেণীর একটি স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ করে এবং এই মাসের ২ তারিখে স্থানীয় একটি ক্লিনিকে মেয়েটির ডিএনসি করা হয়। এমন একটি অভিযোগ আমাদের কাছে আসলে আমরা দ্রুত পুলিশ পাঠিয়ে আসামিকে গ্রেপ্তার করি। আসামি গ্রেপ্তার হওয়ায় মেয়েটির পরিবার থানায় এসে অভিযোগ দায়ের করেন। আমরা মামলা রুজু করে আসামিকে জিজ্ঞাসাবাদ করে আদালতে প্রেরণ করি।
.
তিনি বলেন, এই ঘটনা ধামাচাপা দিতে স্থানীয় একটি চক্র কাজ করছে। আমরা তাদের ব্যাপারে খোঁজখবর নিচ্ছি, এবং যে ক্লিনিকের মাধ্যমে মেয়েটিকে ডিএনসি করা হয়েছে তাদেরকেও আইনের আওতায় নিয়ে আসবো। ঘটনার সাথে জড়িত কেউই পার পেয়ে যেতে পারবে না। সকলকে আমরা আইনের আওতায় নিয়ে আসবো।
.
অভিযোগকারী মনোয়ারা বেগম জানায়, আসামির লোকজন আমাকে মামলা করতে বারণ করেছেন। এলাকার বিভিন্ন লোক দিয়ে ভয়-ভীতি দেখিয়েছেন। কিন্তু এখন পুলিশ আমাকে সহায়তা করা আমি চাঁদপুর মডেল থানায় মামলা দায়ের করেছি। আমরা অসহায় গরীব মানুষ আমার মেয়ের উপর এরকম অমানবিক আচরণের সুষ্ঠু বিচার দাবি করছি।
Tag :

Please Share This Post in Your Social Media

চাঁদপুরে স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণঃ ধর্ষক আটক

Update Time : ১১:০৬:১৩ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৩ জুলাই ২০২০
এইচ.এম নিজামঃ
পঞ্চম শ্রেণীর স্কুল ছাত্রী ধর্ষণের ঘটনায় পুলিশের সহায়তায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। গত ১২ জুলাই রবিবার ধর্ষণের শিকার স্কুলছাত্রীর মা মনোয়ারা বেগম বাদী হয়ে শিশু ও নারী নির্যাতন আইনে পুলিশের সহায়তায় চাঁদপুর সদর মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।
.
অভিযোগ পেয়ে পুলিশ ব্যাপক তৎপরতা চালিয়ে দিনে দিনেই চাঁদপুর শহরের বাবুরহাট এলাকা থেকে ধর্ষক জাহাঙ্গীর দর্জি (৪০) কে আটক করেন। ধর্ষক জাহাঙ্গীর দর্জি (৪০) কে পুলিশি হেফাজতে জিজ্ঞাসাবাদ করে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।
.
এ ঘটনায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) জাহেদ পারভেজ চৌধুরী সাংবাদিকদের বলেন, চাঁদপুর সদর উপজেলার তরপুরচন্ডী ইউনিয়ন আনন্দবাজার এলাকায় গত চার মাস আগে আসামি জাহাঙ্গীর দর্জি (৪০) পঞ্চম শ্রেণীর একটি স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ করে এবং এই মাসের ২ তারিখে স্থানীয় একটি ক্লিনিকে মেয়েটির ডিএনসি করা হয়। এমন একটি অভিযোগ আমাদের কাছে আসলে আমরা দ্রুত পুলিশ পাঠিয়ে আসামিকে গ্রেপ্তার করি। আসামি গ্রেপ্তার হওয়ায় মেয়েটির পরিবার থানায় এসে অভিযোগ দায়ের করেন। আমরা মামলা রুজু করে আসামিকে জিজ্ঞাসাবাদ করে আদালতে প্রেরণ করি।
.
তিনি বলেন, এই ঘটনা ধামাচাপা দিতে স্থানীয় একটি চক্র কাজ করছে। আমরা তাদের ব্যাপারে খোঁজখবর নিচ্ছি, এবং যে ক্লিনিকের মাধ্যমে মেয়েটিকে ডিএনসি করা হয়েছে তাদেরকেও আইনের আওতায় নিয়ে আসবো। ঘটনার সাথে জড়িত কেউই পার পেয়ে যেতে পারবে না। সকলকে আমরা আইনের আওতায় নিয়ে আসবো।
.
অভিযোগকারী মনোয়ারা বেগম জানায়, আসামির লোকজন আমাকে মামলা করতে বারণ করেছেন। এলাকার বিভিন্ন লোক দিয়ে ভয়-ভীতি দেখিয়েছেন। কিন্তু এখন পুলিশ আমাকে সহায়তা করা আমি চাঁদপুর মডেল থানায় মামলা দায়ের করেছি। আমরা অসহায় গরীব মানুষ আমার মেয়ের উপর এরকম অমানবিক আচরণের সুষ্ঠু বিচার দাবি করছি।