এবার নির্বাচনী খেলা খেলতে দেওয়া হবে না: মির্জা ফখরুল

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • Update Time : ০৬:০২:৫৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১১ অগাস্ট ২০২৩
  • / ২৮৯ Time View

নিজস্ব প্রতিবেদক

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ‘সরকার আর নির্বাচন কমিশন মিলে নতুন দুটি দলকে নিবন্ধন দিয়েছে, যে দল দুটি কেউ চেনে না। কারণ এই আওয়ামী লীগ সরকার এই দল দিয়ে নির্বাচন নির্বাচন খেলা খেলতে চায়। কিন্তু এবার সেই খেলা খেলতে দেওয়া হবে না।’

ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির আয়োজনে শুক্রবার গণমিছিল শুরুর আগে রাজধানীর বাড্ডা সুবাস্ত টাওয়ারের সামনে আয়োজিত সংক্ষিপ্ত সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন।

নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘এবার আপনাদেরকে মরণপণ লড়াই করতে হবে। সামনের দিকে এগিয়ে যাই, দাবি আদায় ছাড়া আমরা থাকব না।’

সরকারের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ‘ভয়ভীতি, জেল-জুলুম দিয়ে দমিয়ে রাখতে পারবেন না। ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের মাধ্যমেই এই ফ্যাসিবাদকে পরাজিত করা হবে।’

পূর্বঘোষিত কর্মসূচি অনুযায়ী শুক্রবার বাড্ডা সুবাস্ত টাওয়ার থেকে আবুল হোটেল পর্যন্ত গণমিছিল করবে ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপি। দুপুর ২টায় কর্মসূচি শুরুর কথা থাকলেও বৃষ্টির কারণে তা বিলম্ব হচ্ছে বলে জানা গেছে।

গণমিছিলে নেতৃত্ব দেবেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। আরও অংশ নেবেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান, আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরীসহ সিনিয়র নেতৃবৃন্দ।

এই গণমিছিল কর্মসূচির সমন্বয়ের দায়িত্বে রয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির আহ্বায়ক আমান উল্লাহ আমান। সঙ্গে রয়েছেন ঢাকা মহানগর উত্তরের সদস্য সচিব আমিনুল হক।

Tag :

Please Share This Post in Your Social Media

এবার নির্বাচনী খেলা খেলতে দেওয়া হবে না: মির্জা ফখরুল

Update Time : ০৬:০২:৫৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১১ অগাস্ট ২০২৩

নিজস্ব প্রতিবেদক

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ‘সরকার আর নির্বাচন কমিশন মিলে নতুন দুটি দলকে নিবন্ধন দিয়েছে, যে দল দুটি কেউ চেনে না। কারণ এই আওয়ামী লীগ সরকার এই দল দিয়ে নির্বাচন নির্বাচন খেলা খেলতে চায়। কিন্তু এবার সেই খেলা খেলতে দেওয়া হবে না।’

ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির আয়োজনে শুক্রবার গণমিছিল শুরুর আগে রাজধানীর বাড্ডা সুবাস্ত টাওয়ারের সামনে আয়োজিত সংক্ষিপ্ত সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন।

নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘এবার আপনাদেরকে মরণপণ লড়াই করতে হবে। সামনের দিকে এগিয়ে যাই, দাবি আদায় ছাড়া আমরা থাকব না।’

সরকারের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ‘ভয়ভীতি, জেল-জুলুম দিয়ে দমিয়ে রাখতে পারবেন না। ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের মাধ্যমেই এই ফ্যাসিবাদকে পরাজিত করা হবে।’

পূর্বঘোষিত কর্মসূচি অনুযায়ী শুক্রবার বাড্ডা সুবাস্ত টাওয়ার থেকে আবুল হোটেল পর্যন্ত গণমিছিল করবে ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপি। দুপুর ২টায় কর্মসূচি শুরুর কথা থাকলেও বৃষ্টির কারণে তা বিলম্ব হচ্ছে বলে জানা গেছে।

গণমিছিলে নেতৃত্ব দেবেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। আরও অংশ নেবেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান, আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরীসহ সিনিয়র নেতৃবৃন্দ।

এই গণমিছিল কর্মসূচির সমন্বয়ের দায়িত্বে রয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির আহ্বায়ক আমান উল্লাহ আমান। সঙ্গে রয়েছেন ঢাকা মহানগর উত্তরের সদস্য সচিব আমিনুল হক।