ইয়েমেনে নৌকাডুবি: নারী-শিশুসহ ৪৯ জনের মৃত্যু, নিখোঁজ ১৪০

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • Update Time : ০৯:৫৪:২৮ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ জুন ২০২৪
  • / 14

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

পশ্চিম এশিয়ার দেশ ইয়েমেন উপকূলে নৌকা ডুবে নারী ও শিশুসহ ৪৯ অভিবাসনপ্রত্যাশীর মৃত্যু হয়েছে। এখনও নিখোঁজ রয়েছেন অন্তত ১৪০ জন। মঙ্গলবার (১১ জুন) আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। খবর আল জাজিরার।

হর্ন অফ আফ্রিকা থেকে নৌকাটি ইয়েমেনের দিকে যাচ্ছিল। ডুবে যাওয়া নৌকাটিতে ২৬০ জন যাত্রী ছিলেন। তাদের অধিকাংশই ইথিওপিয়া ও সোমালিয়ার নাগরিক। সোমালিয়ার উত্তর উপকূল থেকে যাত্রা শুরু করেছিল নৌকাটি।

আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা এক বিবৃতিতে বলেছে, এখন পর্যন্ত ৭১ জনকে উদ্ধার করা হয়েছে, যাদের মধ্যে আটজনকে হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। নিহতদের মধ্যে ছয়জন শিশু ও ৩১ জন নারী রয়েছে।

গত এপ্রিলে ইয়েমেনে পৌঁছানোর চেষ্টা করার সময় জিবুতি উপকূলে দুটি জাহাজডুবির ঘটনায় ৬২ জনের মৃত্যু হয়েছিল। আইওএম তথ্যমতে এই রুটে অন্তত ১৮৬০ জন মারা গেছেন বা নিখোঁজ হয়েছেন। যার মধ্যে ৪৮০ জন ডুবে গেছেন।

২০২১ সাল থেকে ২০২৩ সাল পর্যন্ত ইয়েমেনে আসা অভিবাসীর সংখ্যা বার্ষিক তিনগুণ বেড়েছে, যা প্রায় ২৭ হাজার থেকে ৯০ হাজারের বেশি বলে জানিয়েছে আইওএম। আন্তর্জাতিক সংস্থাটি জানিয়েছে, বর্তমানে প্রায় ৩ লাখ ৮০ হাজার অভিবাসী ইয়েমেনে রয়েছে।

Tag :

Please Share This Post in Your Social Media

ইয়েমেনে নৌকাডুবি: নারী-শিশুসহ ৪৯ জনের মৃত্যু, নিখোঁজ ১৪০

Update Time : ০৯:৫৪:২৮ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ জুন ২০২৪

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

পশ্চিম এশিয়ার দেশ ইয়েমেন উপকূলে নৌকা ডুবে নারী ও শিশুসহ ৪৯ অভিবাসনপ্রত্যাশীর মৃত্যু হয়েছে। এখনও নিখোঁজ রয়েছেন অন্তত ১৪০ জন। মঙ্গলবার (১১ জুন) আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। খবর আল জাজিরার।

হর্ন অফ আফ্রিকা থেকে নৌকাটি ইয়েমেনের দিকে যাচ্ছিল। ডুবে যাওয়া নৌকাটিতে ২৬০ জন যাত্রী ছিলেন। তাদের অধিকাংশই ইথিওপিয়া ও সোমালিয়ার নাগরিক। সোমালিয়ার উত্তর উপকূল থেকে যাত্রা শুরু করেছিল নৌকাটি।

আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা এক বিবৃতিতে বলেছে, এখন পর্যন্ত ৭১ জনকে উদ্ধার করা হয়েছে, যাদের মধ্যে আটজনকে হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। নিহতদের মধ্যে ছয়জন শিশু ও ৩১ জন নারী রয়েছে।

গত এপ্রিলে ইয়েমেনে পৌঁছানোর চেষ্টা করার সময় জিবুতি উপকূলে দুটি জাহাজডুবির ঘটনায় ৬২ জনের মৃত্যু হয়েছিল। আইওএম তথ্যমতে এই রুটে অন্তত ১৮৬০ জন মারা গেছেন বা নিখোঁজ হয়েছেন। যার মধ্যে ৪৮০ জন ডুবে গেছেন।

২০২১ সাল থেকে ২০২৩ সাল পর্যন্ত ইয়েমেনে আসা অভিবাসীর সংখ্যা বার্ষিক তিনগুণ বেড়েছে, যা প্রায় ২৭ হাজার থেকে ৯০ হাজারের বেশি বলে জানিয়েছে আইওএম। আন্তর্জাতিক সংস্থাটি জানিয়েছে, বর্তমানে প্রায় ৩ লাখ ৮০ হাজার অভিবাসী ইয়েমেনে রয়েছে।